বেসরকারি শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতার চেক ছাড়

এমপিও

নিজস্ব প্রতিবেদক: স্কুল ও কলেজ শিক্ষক-কর্মচারীদের বৈশাখী ভাতার চেক ব্যাংকে পাঠানো হয়েছে। আজ ৮ এপ্রিল অনুদান বন্টকারী চারটি ব্যাংকে চেক পাঠানো হয়েছে। ১৩ এপ্রিলের মধ্যে তারা টাকা তুলতে পারবেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। স্মারক নং: ৩৭.০২.০০০০.১০২.৩৭.০০৪.২০১৯/৮১৬/০৪। তারিখ: ০৮/০৪/২০২০।

এর আগে গতকাল ৭ এপ্রিল বৈশাখী ভাতার সরকারি আদেশে জারি করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। তিনি দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতা দেয়ার বিষয়ে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের পাঠানো প্রস্তাবে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন দেয়া হয়েছে। 

গত বছর থেকে বৈশাখী ভাতা পাওয়া শুরু করেন এমপিওভুক্ত শিক্ষক-কর্মচারীরা। 

এদিকে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ সূত্র দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানায়, স্কুল ও কলেজের শিক্ষক ও কর্মচারীদের বৈশাখী ভাতা দিতে প্রায় ১৩৮ কোটি টাকার মতো প্রয়োজন হবে। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে এ টাকা বরাদ্দ রেখেছে অর্থ মন্ত্রণালয়। 

২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের ৮ নভেম্বর বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারীদের জন্য বৈশাখী ভাতা ও ৫ শতাংশ ইনক্রিমেন্ট দেয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার পর সে বছর থেকেই শিক্ষকরা ৫ শতাংশ ইনক্রিমেন্ট পাচ্ছেন। এমপিওভুক্ত প্রায় পাঁচ লাখ শিক্ষক-কর্মচারী পহেলা বৈশাখ বাংলা নববর্ষ উপলক্ষে এ বছর  থেকে  মূল বেতনের ২০ শতাংশ বৈশাখী ভাতা  পাবেন।

কেউ দাবি করেনি, কেউ চিন্তাও করেনি, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সম্পূর্ণ নিজের চিন্তায় সরকারি, স্বায়ত্বশাসিত ও বিভিন্ন সংস্থায় কর্মরত কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জন্য বৈশাখী ভাতা চালু করেন। পরে বেসরকারি এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের দাবির প্রেক্ষিতে দেয়া শুরু হয়। 

খুব সস্তা এখনি কিনুন
Read more and more  এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল জানবেন যেভাবে

Get involved!

Comments

No comments yet